ঢাকায় সাইকেল চালানোর কালচার

বাইসাইকেলের উপরে স্পোর্টিং হেলমেট ও একজোরা রোদচশমা-এই চিত্র ঢাকার ব্যস্ত রাস্তায় প্রায় দেখা যায়। সাইকেল, যা এক সময় গরীব মানুষের বাহন হিসেবে পরিচিত ছিল তা এখন ঢাকা শহরের মানুষের কাছে, যানযটের কারনে জনপ্রিয় হচ্ছে। সাইক্লিং দক্ষিণ এশিয়ার এই দেশটিতে জনপ্রিয়তার সাথে সাথে মানুষকে একটি নতুন জীবনধারায় অভ্যস্ত করছে কারন যাত্রীরা শহরের নিয়মিত যানযট ও অচল যানবাহন থেকে মুক্ত হতে বিপুল ভাবে চেষ্টা করছে।

ঢাকার থেকে যে কেউ মাত্র ২০ থেকে ২৫ মিনিটে বাইসাইকেল চালিয়ে গ্রামে যেতে পারে। শহরে কেউ ট্রাফিক সিগন্যাল মেনে চলে না। গাড়িতে ভ্রমনের সময় তিব্র যানযটে দিনের অর্ধেক সময় নষ্ট হয়। পূর্বে সাইক্লিং দারিদ্র পিড়িত গ্রামের ও শ্রমিক শ্রেনীর মানুষের কাছে প্রথম পছন্দ ছিল, যেখানে বিত্তবানেরা গাড়ীতে ও মধ্যবিত্তরা বাসসহ অন্যান্য বাহন ব্যবহারে অভ্যস্ত।

ইতিহাস সমৃদ্ধ ঢাকা শহর ৪০০ বছর পূর্বে স্থাপিত হয়েছিল। এটা বাংলাদেশের রাজধানী যেখানে ৩৫০ বর্গকিলোমিটারে ১৮ মিলিয়ন লোক বসবাস করে। ইকোনোমিস্ট ইন্টিলিজেনস ইউনিট অনুযায়ী এটা পৃথিবীর অন্যতম অবসবাসযোগ্য শহরের মধ্যে একটি এবং এই খ্যাতির জন্য শহরের তীব্র যানযট-এর অবদান অনেকখানি। ঢাকাতে গাড়ির লম্বা লম্বা সারি হামাগুরি দিয়ে চলছে। শহরটি ক্রমবর্ধমান ট্রাফিক নিয়ন্ত্রন করতে পারে না এবং এটা অনেকের জন্য মানষিক চাপ।

এখন কিছু মানুষ যানযট অচলাবস্থা থেকে সাইকেলে কিছুটা সস্তি পাচ্ছে। দিনকে দিন ঢাকা শহর নরক হয়ে যাচ্ছে যেখানে রিকসা বা বাসে যাতায়ত করা খুব কঠিন। বেশীরভাগ লোক প্রচন্ড মানষিক চাপ অুনভব করে যখন যানযটের কারনে রাস্তার মাঝে আটকে থাকে। এই অবস্থায় বাইসাইকেল মনে হয় আল্লাহ প্রদত্ত উপহার। এখন হল থেকে ক্লাসে যাওয়া, বাসা থেকে অফিসে যাওয়া, রাতে বাহিরে হালকা খেতে যাওয়া বা টিউশনে যাওয়া খুব সহজ হয়ে গেছে।

এ বিষয়ের আন্যান্য সংবাদ :

Tagged with:
Postedxxx in বাংলাদেশ, বুদ্ধি পরামর্শ

মন্তব্য করুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশ করা হবেনা। পুরন করা জরুরী *

*

You may use these HTML tags and attributes: <a href="" title=""> <abbr title=""> <acronym title=""> <b> <blockquote cite=""> <cite> <code> <del datetime=""> <em> <i> <q cite=""> <strike> <strong>

জরিপ

ব্যাংকিং খাতের অবস্থা কি ভালো বলে আপনি মনে করেন?

Loading ... Loading ...
ফেসবুক এ আমরা